সিলেট জেলা শিল্পকলায় মঞ্চায়িত হলো ‘আমাদের খোকা’

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে সিলেট জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে মঞ্চায়িত হলো নাটক ‘আমাদের খোকা’।

বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির উদ্যোগে ৬৪ জেলায় নাটক নির্মাণ কর্মসূচির ধারাবাহিকতায় সিলেট জেলা শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে আজ (৯ ডিসেম্বর) বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে সিলেট জেলার প্রযোজনাটি মঞ্চায়িত হয়।

গোপালগঞ্জের টুঙ্গীপাড়ায় শেখ লুৎফর রহমানের ঘরে জন্ম নিয়ে কোমলমতি ছোট্ট খোকা থেকে বাঙালি জাতির হাজার বছরের লাঞ্ছনা বঞ্চনার মুক্তিদাতা হিসেবে কিভাবে নিজেকে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানে পরিণত করলেন, তারই কিছু খণ্ড ঘটনার আলোকে নির্মিত হয়েছে নাটক ‘আমাদের খোকা’।

নাতকটি রচনা করেছেন বাবুল আহমদ, আর নির্দেশনা দিয়েছেন সিলেট জেলা শিল্পকলা একাডেমির নাটকের প্রশিক্ষক ভবতোষ রায় বর্মণ।

নাটকটি মঞ্চায়নের পূর্বে উদ্বোধনী পর্বের সংক্ষিপ্ত আনুষ্ঠানিকতায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক সিলেট এম কাজী এমদাদুল ইসলাম।

এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খান ও সম্মিলিত নাট্য পরিষদ সিলেটের প্রধান পরিচালক অরিন্দম দত্ত চন্দন।

অন্যান্যের মধ্যে মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন নাটকটির রচয়িতা বাবুল আহমদ, নির্দেশক ভবতোষ রায় বর্মণ এবং সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সভাপতি মিশফাক আহমদ চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্ত।

উদ্বোধনী পর্বের শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য রাখেন প্রযোজনাটির প্রধান সমন্বয়কারী ও জেলা কালচারাল অফিসার অসিত বরণ দাশ গুপ্ত।

আবৃত্তিশিল্পী নাফিসা তানজীনের সঞ্চালনায় নাটকের বিভিন্ন চরিত্রে অভিনয় করেন রুবেল রাজ, সন্দীপ চক্রবর্তী, সুমনা দেব কেয়া, সোনিয়া আক্তার সোনালী, জারতাজ জাকিয়াহ্ জারা, দিপন তালুকদার, মো. আদনান আনোয়ার, রোহিত দত্ত চৌধুরী, বিশাল দে বৃত্ত, সাগর দেব নাথ, মো: হাসিব হোসেন, মির্জা ফজলে জান্নাত মাশরাফী, দেবরাজ গৌরব, প্রিয়াংকা চক্রবর্তী, সোনিয়া আকতার ইতি, অরূপ দে, সন্তোষ দাস, ছাদিকুর রহমান নয়ন, ঋত্বিক আদিত্য, জুবায়ের আহমদ, শুভ্রদীপ দাশ শুভ, জাওয়াতা আফনান রোজা, খলিলুর রহমান ফয়সাল, মো. শিমুল হাসান, রিজভী আরিফ দিপন, সিঁথী চক্রবর্তী ও নাজনীন আক্তার কণা। প্রযোজনাটির আলোক পরিকল্পনা ও প্রক্ষেপণে ছিলেন শাহজাহান মিয়া, আবহ সংগীতে মো. ইয়াকুব আলী, রূপসজ্জায় সুমন রায় ও রিজভী আরিফ দিপন, মঞ্চসজ্জায় সুদর্শন সিংহ এবং মহড়া ব্যবস্থাপনায় ছিলেন মো. শিমুল হাসান ও সুমনা দেব কেয়া।