সিলেটের সব কেন্দ্রে যাচ্ছে নির্বাচনী সরঞ্জাম

সোমবার সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনকে সামনে রেখে ইতোমধ্যেই ১৩৪টি ভোটকেন্দ্রে নির্বাচনী সরঞ্জাম পৌঁছানোর কাজ শুরু করেছে নির্বাচন কমিশন।

রোববার (২৯ জুলাই) দুপুর ১টার দিকে নগরীর মাছিমপুরস্থ আবুল মাল আব্দুল মুহিত ক্রীড়া কমপ্লেক্স থেকে দায়িত্বপ্রাপ্ত কেন্দ্রগুলোর নির্বাচনী কর্মকর্তারা প্রয়োজনীয় সরঞ্জাম নিয়ে নিজ নিজ কেন্দ্রে রওয়ানা হয়েছেন।

এ সময় রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. আলীমুজ্জামান অবাধ সুষ্ঠ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন আয়োজন করার ব্যাপারে প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। তিনি বলেন- নির্বাচন কমিশন পুরোপুরি প্রস্তুত। নির্বাচন কাজে ব্যবহৃত সরঞ্জামাদী কেন্দ্রে পৌঁছানোর কাজ শুরু হয়েছে। যথাসময়েই তা কেন্দ্রে পৌঁছে যাবে।

এছাড়া ইতিমধ্যেই আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তাদের নির্বাচনী দায়িত্ব পালন শুরু করেছেন বলে জানিয়েছেন তিনি।

এদিকে সিসিক নির্বাচনে দায়িত্ব পালন করবে ১৪ প্লাটুন বিজিবি ও র‍্যাবের ২৭টি টিমসহ আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর বিপুল পরিমাণ সদস্য। সিলেট সিটি নির্বাচনের ১৩৪টি ভোট কেন্দ্রের মধ্যে ৫৪ টি সাধারণ কেন্দ্রের প্রতিটিতে ২২ জন করে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী সদস্য দায়িত্ব পালন করবেন। এর মধ্যে ৭ জন পুলিশ, ১২ জন আনসার সদস্য, আগ্নেয়াস্ত্রসহ আনসার বাহিনীর একজন প্লাটুন কমান্ডার (পিসি) ও একজন এপিসি এবং একজন ব্যাটালিয়ন আনসার সদস্য থাকবেন। আর গুরুত্বপূর্ণ ভোট কেন্দ্রে থাকবেন ২৪ জন সদস্য। এর মধ্যে ৭ জন পুলিশ, ১২ জন আনসার সদস্য, আগ্নেয়াস্ত্রসহ আনসার বাহিনীর একজন প্লাটুন কমান্ডার (পিসি) ও একজন এপিসি এবং তিনজন ব্যাটালিয়ন আনসার সদস্য থাকবেন।

এছাড়া ৯ টি স্ট্রাইকিং ফোর্স, মোবাইল টিম ৯ টি, ৯ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট, ৯ জন জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট নির্বাচনের আইনশৃঙ্খলার দায়িত্বে থাকবেন বলেও জানিয়েছেন সিলেট জেলা প্রশাসক নুমেরি জামান।

তিনি জানান, সিসিক নির্বাচনকে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন করার লক্ষ্যে সিসিক নির্বাচনে ১৩৪ টি ভোট কেন্দ্রে ২ হাজার ৯৪৮ জন পুলিশ ও আনসার বাহিনীর সদস্য নিরাপত্তার দায়িত্বে নিয়োজিত থাকবে।

নির্বাচনী দায়িত্বে থাকবেন ১৩৪ জন প্রিজাইডিং অফিসার, ৯২৬ জন সহকারি প্রিজাইডিং অফিসার ও ১ হাজার ৮৫২ জন পোলিং অফিসার।

উল্লেখ্য, সোমবার অনুষ্ঠিতব্য সিলেট সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে ভোট প্রদান করবেন ৩ লাখ ২১ হাজার ৭শ’ ৩২ জন ভোটার। তারা ১ জন মেয়র, ২৬ জন সাধারণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ইতিমধ্যেই ১ জন নির্বাচিত) ও মহিলাদের জন্য সংরক্ষিত ওয়ার্ডে ৯ জন কাউন্সিলর নির্বাচিত করবেন।