বিশ্বনাথে প্রবাসীদের উদ্যোগে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ

‘আমরা দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাসী, হৃদয় দিয়ে বাংলাদেশকে ভালোবাসি’ স্লোগানে ‘ইপিএস বাংলা কমিউনিটি ইন কোরিয়া’র উদ্যোগে সিলেটে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত অসহায়দের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে।

সোমবার (৪ জুলাই) সিলেটের বিশ্বনাথ উপজেলার ৪টি ইউনিয়নের ১৫০ জন বন্যাকবলিত মানুষের দোরগোড়ায় ত্রাণসামগ্রী পৌঁছে দিয়েছেন দক্ষিণ কোরিয়ায় বসবাসরত প্রবাসীরা।

বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত হওয়া লামাকাজি গ্রামের আম্বিয়া বেগম খাদ্যসামগ্রী পেয়ে আবেগাপ্লুত হয়ে বলেন, ‘বিদেশর হক্কল এরা মানুষ থাকিও ভালা। এরারে আল্লায় ফেরেশতা বানাইয়া পাঠাইছন। বিদেশ থাকিয়া অনেক কষ্ট কইরাও আমরার লাগি ত্রাণ দিছইন। তারার লাগি দোয়া করি। তারারে আল্লায় ভালা করতা।’

দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাসীদের প্রতিনিধি সাংবাদিক বদরুল ইসলাম মহসিন বলেন, বিশ্বনাথে দুর্গত মানুষের সংখ্যা অনুযায়ী এ ত্রাণ খুবই নগন্য। তবে প্রবাসীদের আন্তুরিকতা এবং ভালোবাসার কমতি ছিল না। প্রবাসীদের উপহার খাদ্যসামগ্রী আমরা সিলেটের বিভিন্ন জায়গায় পৌঁছে দেওয়ার চেষ্টা করেছি। কোরিয়ায় বসবাসরত বাংলাদেশি প্রবাসীরা দেশের যে কোনো দুর্যোগে সরকারের পাশাপাশি এগিয়ে আসেন। বর্তমান বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত বানভাসি মানুষের জন্য যে উদ্যোগ তারা নিয়েছেন তা দেশ ও বিদেশে প্রশংসার দাবি রাখে। তাদের এ ভালোবাসা ভবিষ্যতে আরও প্রসারিত করার অনুপ্রেরণা জোগাতে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

ত্রাণ বিতরণের এই মানবিক কাজে উপস্থিত ছিলেন, লামাকাজি ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান (১) এনামুল হক, সাবেক সেনা কর্মকর্তা সিদ্দিকুর রহমান মজনু, সচেতন সমাজকল্যাণ সংস্থা বিশ্বনাথের আহবায়ক ফজল খান ও লামাকাজি ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক লীগের সহ-সভাপতি শহিদ খান।