নাবিলা-জোবাইদুলের জমকালো বিয়ে

গায়ে জড়ানো সোনালি রঙের লেহেঙ্গা, মাথায় লাল টুকটুকে ওড়না আর শরীরে মোড়ানো ভারী অলংকার নিয়ে বিয়ের অনুষ্ঠানে বধূ সেজে হাজির হন উপস্থাপিকা ও অভিনেত্রী মাসুমা রহমান নাবিলা। বর জোবাইদুল হক পরেন কালো শেরওয়ানি আর মাথায় ছিল লাল পাগড়ি।

বৃহস্পতিবার (২৬ এপ্রিল) রাতে রাজধানীর মহাখালীর একটি কনভেনশন সেন্টারে দু’জন বিয়ের বন্ধনে আবদ্ধ হন। দুই পরিবারের সদস্য ও শোবিজ অঙ্গনের অনেকের উপস্থিতিতে তাদের বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন হয়।

নাবিলা-জোবাইদুলকে শুভকামনা জানাতে বিয়ের অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়েছিলেন সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, পরিচালক অমিতাভ রেজা চৌধুরী, তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, উপস্থাপক আনজাম মাসুদ, অভিনেত্রী বন্যা মির্জা, নাট্যনির্মাতা মাবরুর রশিদ বান্নাহ, অভিনেতা সুমন পাটোয়ারী, কণ্ঠশিল্পী ও অভিনেত্রী রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা, শবনম ফারিয়া, স্বাগতা, সাফা কবির, মারিয়া নূর, স্পর্শীয়া, আশনা হাবিব ভাবনাসহ শোবিজ অঙ্গনের অনেকেই।

চট্টগ্রামের সাতকানিয়ার মেয়ে নাবিলার শৈশব কেটেছে সৌদি আরবের জেদ্দায়। ১৮ বছর আগে সেখানেই নেত্রকোনার ছেলে জোবাইদুল হকের সঙ্গে তার পরিচয়। কৈশোরেই পরস্পরের প্রতি ভালোলাগা তৈরি হয়। আর সেই ভালোলাগা থেকেই বিয়ের পিঁড়িতে বসলেন দু’জনে।

জেদ্দা থেকে ফিরে বিশ্ববিদ্যালয়ের পাঠ চুকিয়ে একটি বেসরকারি ব্যাংকে কর্মরত আছেন জোবাইদুল। ঢাকায় থাকেন উত্তরায়।

২০১৬ সালে অমিতাভ রেজা পরিচালিত ‘আয়নাবাজি’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করে প্রশংসিত হন নাবিলা। ‘এবং ক্লাসের বাইরে’ অনুষ্ঠান উপস্থাপনার মধ্য দিয়ে ২০০৬ সালে তার মিডিয়ায় যাত্রা শুরু।