দারুণ শুরুর পর ফের বিবর্ণ বাংলাদেশ

জ্যামাইকায় যেন ফিরে আসছে এন্টিগার দুঃস্মৃতি। বলা যায়, আরেকটা টেস্ট হারের সামনে অসহায় টাইগাররা। অথচ দ্বিতীয় দিনটা দারুণভাবে শুরু করেছিল বাংলাদেশ। কিন্তু দিন শেষে বাংলাদেশের সেই বিবর্ণ রূপ।

জ্যামাইকায় টস জিতে আগে বোলিং নিয়েছিলেন টাইগার অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। ব্যাটিং করতে নেমে ওপেনার ক্রেইগ ব্রেথওয়েটের শতক আর শিমরন হেটমেয়ারের অর্ধশতকে প্রথম দিন শেষ হয় ৪ উইকেটে ২৯৪ রানে। এই চার উইকেটে মেহেদী মিরাজের ছিল ৩ উইকেট আর তাইজুল ইসলামের ১টি।

শুক্রবার (১৩ জুলাই) দ্বিতীয় দিনে ব্যাট করতে নেমে প্রথম সেশনেই বাংলাদেশের বোলাররা তুলে নেন ক্যারিবীয়দের শেষ ৬ উইকেট। এদিন আরো ২ উইকেট নিয়ে ক্যারিয়ারে পঞ্চমবারে মতো ৫ উইকেট পান মিরাজ। সব মিলিয়ে ১১২ ওভার ব্যাটিং করে ৩৫৪ রান তুলে স্বাগতিক ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

এর পর ব্যাটিং করতে নেমে লিটন দাসকে দিয়ে শুরু টাইগারদের বিপর্যয়। তামিম ইকবালের ১০৫ বলে ৪৭ রান ছাড়া বাকি দশ ব্যাটসম্যানের কেউ পৌঁছাতে পারেননি পঞ্চাশের আশেপাশে। ৪৬.১ ওভার ব্যাটিং করে ১৪৯ রানেই অল আউট হয়ে যায় বাংলাদেশ।

টাইগারদের এমন ব্যাটিং দৈন্যদশার মূল কারণ জেসন হোল্ডার। একাই ৫ উইকেট তুলে নিয়েছেন এই উইন্ডিজ বোলার। এ নিয়ে ক্যারিয়ারে এটি তার তৃতীয়বারের পঞ্চম উইকেট পাওয়া।

দিনের শেষ সেশনে দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ৯ ওভারে ১ উইকেট হারিয়ে ১৯ রান সংগ্রহ করেছে ক্যারিবীয়রা। সাকিব আল হাসানের বলে বোল্ড হয়ে ফিরে গেছেন প্রথম ইনিংসে শতক হাঁকানো ক্রেইগ ব্রেথওয়েট।