ট্রাকের উপরে পাথর, নিচে ২০০ বস্তা চোরাই চিনি

0
0

সিলেটের এবার পাথরবোঝাই ট্রাকের ভেতর থেকে ২০০ বস্তা চিনি উদ্ধার করেছে পুলিশ। শুক্রবার (১৪ জুন) দুপুরে সিলেটের শাহপরাণ (রহঃ) সুরমা গেইট এলাকায় অভিযান চালিয়ে চালানটি আটক করে পুলিশ।

পুলিশ বলছে, ট্রাকের নিচে চিনির বস্তা লুকিয়ে উপরে আনুমানিক তিন ইঞ্চি স্তরের পাথর দিয়ে জৈন্তাপুরের হরিপুর থেকে চালানটি পাচার করছিল চোরাকারবারিরা। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে এসব চিনি জব্দ করা হয়েছে। জব্দ করা চিনির দাম আনুমানিক ১১ লাখ ৭৬ হাজার টাকা।

এ ঘটনায় ট্রাকের চালক ও সহকারীকে আটক করে পুলিশ। আটকরা হলেন, রাজশাহী জেলার বেলপুকুর থানার বলপুকুরিয়া গ্রামের দুরুল হুদার ছেলে মো. সালাহউদ্দিন (২৮) ও একই জেলার দূর্গাপুর থানার বহরমপুর গ্রামের মৃত আফাজ উদ্দিনের ছেলে মো. মহাশিন (২৪)। তাদের মধ্যে সালাহউদ্দিন ট্রাকের চালক ও মহাশিন তার সহকারী।

পুলিশ জানায়, জৈন্তাপুরের হরিপুর এলাকা থেকে উপরে পাথর দিয়ে ভেতরে ভারতীয় চিনি সিলেট শহরের দিকে আসছে-এমন সংবাদ পেয়ে শাহপরাণ সুরমাগেইট এলাকায় চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশী চালায় পুলিশ। এসময় একটি ট্রাককে থামার জন্য সিগন্যাল দিলে চালক ট্রাকটি নিয়ে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। পরে ধাওয়া করে ট্রাকটি আটক করা হয়। এসময় তল্লাশী চালিয়ে ট্রাকে থাকা পাথরের স্তরের নিচ থেকে ২০০ বস্তা ভারতীয় চিনি উদ্ধার করা হয়। পরে এ ঘটনায় ট্রাকের চালক ও তার সহকারীকে আটক করা হয়।

এ বিষয়ে শাহপরাণ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হারুনুর রশিদ চৌধুরী বলেন, চোরাকারবারিরা নানা পুলিশের চোখ ফাঁকি দেওয়ার চেষ্ঠা করছে। ট্রাকের ভেতরে মাত্র ৩ ইঞ্চি পাথরের স্তর ছিল। এর নিচে ভারতীয় চিনির চালান ছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে এসব চোরাই চিনি জব্দ করা হয়েছে।

তিনি বলেন, এ ঘটনায় ট্রাকের চালক ও সহকারীকে আটক করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।