জাপা থেকে বহিষ্কৃত ইয়াহইয়া চৌধুরীর পদত্যাগ

0
0

সিলেট-২ আসনের সাবেক এমপি জাতীয় পার্টির ভাইস প্রেসিডেন্ট ইয়াহইয়া চৌধুরী এহিয়াকে গত ১৪ জানুয়ারি দল থেকে বহিষ্কার করা হয়। বহিষ্কারের ১১ দিন পর জাপা থেকে ‘পদত্যাগ’ করলেন তিনি।

জানা যায়, জাপা চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ (জি.এম) কাদের ও মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নুর স্বেচ্ছাচারিতার অভিযোগ তুলে দলটির ঢাকা মহানগর উত্তরের ১০টি থানার ৬৭১ নেতাকর্মী পদত্যাগ করেছেন। সেইসঙ্গে নতুন করে জাতীয় পার্টি ব্রাকেটবন্দি করার ইঙ্গিত দেওয়া হয়। এই ১৬১ জনের মধ্যে আছেন ইয়াহইয়া চৌধুরী এহিয়া।

বৃহস্পতিবার (২৫ জানুয়ারি) বিকালে জাতীয় প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে এই গণপদত্যাগের ঘোষণা দেন জাপার ঢাকা মহানগর উত্তরের সদ্য বহিষ্কৃত আহ্বায়ক শফিকুল ইসলাম সেন্টু।

সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, পর্যায়ক্রমে আরও নেতা পদত্যাগ করবেন। সেইসঙ্গে জাতীয় পার্টি নতুন করে ব্রাকেটবন্দী করার ইঙ্গিত দেওয়া হয়। সভা শেষে নেতাকর্মীরা চেয়ারম্যান ও মহাসচিবের বিরুদ্ধে নানা স্লোগান দেন।

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর থেকে জাতীয় পার্টিতে চলছে অস্থিরতা। দলটি এবারের নির্বাচনে আওয়ামী লীগের ছেড়ে দেওয়া ২৬টি আসনের মধ্যে মাত্র ১১টিতে জিততে পেরেছে। দলটির প্রার্থীদের ৯০ শতাংশই জামানত হারিয়েছেন।

পরাজিত প্রার্থীদের একাংশ দলের চেয়ারম্যান জি এম কাদের ও মহাসচিব মুজিবুল হকের বিরুদ্ধে ভোটের সময় সহায়তা না করা, খোঁজ না নেওয়াসহ বিভিন্ন অভিযোগ তুলেন। ভোটের পর জাপার বনানীর কার্যালয়ের সামনে নেতা-কর্মীদের একটি অংশ বিক্ষোভ করে। এতে ঢাকা ও আশপাশ এলাকার কয়েকজন প্রার্থীও ছিলেন। সেখানে জি এম কাদের ও মুজিবুল হকের পদত্যাগ দাবি করা হয়।

এরপর থেকে কয়েক দফায় বেশ কয়েকজন শীর্ষ নেতাকে বহিষ্কার করেন জি এম কাদের ও মুজিবুল হক। শেষ পর্যন্ত বৃহস্পতিবার ৬৭১ নেতাকর্মী পদত্যাগ করেছেন।