কোটা আন্দোলনের নেতা রাশেদ গ্রেপ্তার

তথ্যপ্রযুক্তি আইনে করা মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতা রাশেদ খাঁনকে।

শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসান গ্রেপ্তারের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে, রোববার (১ জুলাই) বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক রাশেদ খাঁনকে মিরপুর-১৪ থেকে তুলে নেওয়ার অভিযোগ উঠে ডিবি পুলিশের বিরুদ্ধে। সংগঠনটির আহ্বায়ক হাসান আল মামুন এ কথা জানান।

তিনি জানান, রোববার বেলা সাড়ে ১২টার দিকে রাশেদের মিরপুরের বাসা থেকে তাকে তুলে নেয়া হয়। এছাড়া রাশেদ নিজে তার ফেসবুক একাউন্ট থেকে লাইভে এসে তাকে তুলে নেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ করেন।

এছাড়া কোটা আন্দোলনের আরেক কেন্দ্রীয় নেতা ফারুক হাসান বলেন, মিরপুর-১৪ এর মজুমদার মোড়ের ১২ নম্বর বাসা থেকে তাকে তুলে নেয়া হয়।

তবে ডিবির যুগ্ম কমিশনার আব্দুল বাতেন রাশেদ খানকে তুলে নেওয়ার বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, “ডিবি পুলিশ এমন কাউকে আটক করেনি।”

এর আগে, গতকাল শনিবার সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর হামলা চালায় ছাত্রলীগ। এ ঘটনায় আন্দোলনে নেতৃত্ব দেওয়া নূরুল হকসহ অন্তত ছয়জন আন্দোলনকারী আহত হন। ওই হামলার প্রতিবাদে আজ রোববার বেলা ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাড়া দেশের সব বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজে মানববন্ধন এবং কাল সোমবার সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিক্ষোভ কর্মসূচি ঘোষণা করে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ।