কিংবদন্তী হতে পারবেন রোনালদো?

ইউরোপিয়ান শীর্ষ প্রতিযোগিতা চ্যাম্পিয়নস লিগের ফাইনালে আজ (শনিবার) রাতে লিভারপুলের মুখোমুখি হবে রিয়াল মাদ্রিদ। কিয়েভে রাত পৌনে ১টায় মাঠে নামবেন সালাহ-রোনালদোরা।

মাদ্রিদের পর্তুগিজ তারকা ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর এটি ষষ্ঠ চ্যাম্পিয়নস লিগ ফাইনাল। রিয়াল আজ রেকর্ড হ্যাটট্রিক শিরোপা জিতলে রোনালদোর জন্য এই রাতটা হবে অবিস্মরণীয়।

মাদ্রিদে আসার আগে ইংলিশ জায়ান্ট ক্লাব ম্যানইউ’র হয়ে দুটি চ্যাম্পিয়নস লিগ ফাইনাল খেলেছেন রোনালদো। ওই দুই ফাইনালে ভিন্ন স্বাদ পেতে হয়েছিল তাকে। ২০০৮ সালে চেলসির বিপক্ষে প্রথমবার শিরোপা জিতেছিলেন তিনি। কিন্তু পরের বছর পেপ গার্দিওলার বার্সেলোনার কাছে হেরে গিয়ে সেটা ধরে রাখতে পারেননি।

তারপর লাল জার্সি খুলে পরলেন রিয়ালের সাদা জার্সি। মাদ্রিদের ক্লাবটির হয়ে ফাইনাল খেলে সবগুলোই জিতেছেন রোনালদো। এই ইতিহাসের শুরুটা হয়েছিল ২০১৪ সালে লিসবন ফাইনালে। ওই ফাইনালে অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদের বিপক্ষে জিতে দশমবারের মতো ইউরোপ সেরা হয়েছিল রিয়াল।

দুই বছর পর ২০১৬ সালে মিলানের ফাইনালে আবারও মাদ্রিদ ডার্বিতে চ্যাম্পিয়ন হওয়ার স্বাদ পান রোনালদো। গত বছর কার্ডিফে জোড়া গোল করে রিয়ালকে এনে দেন ১২তম শিরোপা।

ক্লাব ফুটবলের শীর্ষ পুরস্কার চারবার জিতেছেন রোনালদো। আরেকটি জিতলেই তিনি জায়গা করে নেবেন রিয়ালের লিজেন্ড আলফ্রেদো দি স্তেফানোর পাশে, যিনি এই ক্লাবেই পাঁচটি ইউরোপিয়ান কাপ জিতেছেন।

শনিবার রাতে তাই কিংবদন্তি হওয়ার সামনে রোনালদো। দলকে আরও একবার শিরোপা জেতাতে পারলে রিয়ালের জন্য প্রতিষ্ঠিত হবে একটি যুগের। আর এই নতুন যুগের স্রষ্টা হিসেবে স্মরণীয় হয়ে থাকবেন ‘সিআরসেভেন’।

সূত্র: মার্কা