কানাইঘাটে মুজিবনগর দিবসের আলোচনা সভা

ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস উপলক্ষ্যে কানাইঘাটে মুজিবনগর দিবস এবং বাংলাদেশের স্বাধীনতা শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার (১৭ এপ্রিল) সকাল ১১টায় উপজেলা পরিষদ সভাকক্ষে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানিয়া সুলতানার সভাপতিত্বে ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) লুসিকান্ত হাজং এর পরিচালনায় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন- উপজেলা আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক লুৎফুর রহমান।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন লক্ষীপ্রসাদ পশ্চিম ইউপি চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা জেমস্ লিও ফারগুসন নানকা, বাণীগ্রাম ইউপি চেয়ারম্যান মাসুদ আহমদ, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক রফিক আহমদ, শ্রী রিংকু চক্রবর্তী, পৌর আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক খলিলুর রহমান, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কাজী আনোয়ার হোসেন, কানাইঘাট থানার এসআই হুমায়ুন কবির, আওয়ামী লীগ নেতা হোসেন আহমদ, সূচনা প্রকল্পের গভারনেন্স কর্মকর্তা মো. আবু সাঈদ।

এছাড়া উপস্থিত ছিলেন, পৌর কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল হারিছ, যুবলীগ নেতা নজরুল ইসলাম, ছাত্রলীগ নেতা মিজান প্রমুখ।

এ সময় বক্তারা মুজিবনগর দিবসের নানাদিক তুলে ধরে বলেন, ১৯৭১ সালের এই দিনে কুষ্টিয়া জেলার মেহেরপুর মহকুমার বৈদ্যনাথতলার আম্রকাননে বাংলাদেশ সরকারের প্রথম মন্ত্রীসভা শপথ গ্রহণ করে। রচিত হয় স্বাধীন বাংলাদেশের নতুন ইতিহাস। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বাধীনতা ঘোষণার পরই বৈদ্যনাথতলা নামে পরিচিত ঐ বিশাল আম বাগান এলাকাকে পরে মুজিবনগর নাম দিয়ে বাংলাদেশের অস্থায়ী রাজধানী ঘোষণা করা হয়েছিল। হানাদার দখলমুক্ত করতে মুজিবনগর সরকারের নেতৃত্বেই পরিচালিত হয় স্বশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধ। অস্থায়ী সরকারের সফল নেতৃত্বে দীর্ঘ ৯ মাস বাঙালীরা মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে ১৬ই ডিসেম্বর বিজয়ের মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ স্বাধীনতা অর্জন করে।

১৭ এপ্রিলের সেই দিনে জাতির মাহিন্দ্রক্ষণে জাতির পিতা শেখ মুজিবুর রহমানকে রাষ্ট্রপতি, তাজ উদ্দিন আহমদকে প্রধানমন্ত্রী এবং ক্যাপ্টেন এম. মনসুর আলী ও এএইচএম কামরুজ্জামানকে মন্ত্রীসভার সদস্য করে স্বাধীন বাংলার অস্থায়ী সরকার গঠন করা হয়।