ওসমানীনগরের দুপক্ষের সংঘর্ষে আহত ১, আটক ৩

ওসমানীনগরে স্বামী-স্ত্রীর ঝগড়াকে কেন্দ্র করে দুপক্ষের সংঘর্ষে একজন আহত হয়েছেন। শুক্রবার (১ জুন) দিবাগত রাত ১২টার দিকে উপজেলার কুরুয়া বাজারে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ ৩ জনকে আটক করেছে।

স্থানীয়রা জানান, উপজেলার দয়ামীর ইউনিয়নের খাপন গ্রামের ছুফিয়ান আহমদের সাথে তার স্ত্রীর গত কয়েকদিন ধরে ঝগড়া চলছিলো। এরই সূত্র ধরে ছুফিয়ানের শ্যালক কামালের পক্ষ নিয়ে কুরুয়া বাজারে একই এলাকার কামরুল ও তাদের সহযোগিরা ছুফিয়ানের খোঁজ করতে থাকে। পরে ছুফিয়ানের পক্ষে থাকা কামরুলের বড় ভাই জামাল কুরুয়া বাজারে গিয়ে তাদেরকে সরে যেতে বলেন।

এ সময় কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। এ সময় কামরুলের পক্ষের লোকজন উত্তেজিত হয়ে খাপন গ্রামের কওছর আহমদ (৩৫) এর উপর হামলা করলে তিনি গুরুতর আহত হন। কওছর আহত হওয়ার খবর ছড়িয়ে পড়লে এলাকাবাসী কামরুলের পক্ষের লোকজনের উপর হামলা চালায়। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে।

এ সময় স্থানীয় আবু আল রশিদের বাসায় হামলা চালিয়ে একটি প্রাইভেট কার ও একটি পিকআপ ভ্যান ভাংচুর করা হয়। খবর পেয়ে ওসমানীনগর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এবং ঘটনাস্থল থেকে তিনজনকে আটক করে।

ওসমানীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ সহিদ উল্যা ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, স্বামী স্ত্রীর ঝগড়ার বিষয়কে কেন্দ্র করে দু’পক্ষ কুরুয়া বাজারে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়েন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করা হয়েছে। এ ব্যাপারে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানান তিনি।